আগামী মাসের শুরুতেই করোনার টিকা পাবে বাংলাদেশ: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

জানুয়ারির প্রথমদিকেই করোনাভাইরাসের টিকা পাবে বাংলাদেশ বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক।
বৃহস্পতিবার, মহাখালীতে বিসিপিএস মিলনায়তনে হাম-রুবেলা টিকাদান ক্যাম্পেইন উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।

এ সময় তিনি আরও বলেন, আগামী মাসের প্রথম কোয়ার্টারে দেশে আনা হবে অ্যাস্ট্রাজেনেকার করোনা ভ্যাকসিনা। ভারতের কোম্পানি ফেডারেল ইন্সটিটিউটের মাধ্যমে অক্সফোর্ডের অ্যাস্ট্রাজেনেকার ভ্যাকসিন আনা হবে। মোট তিন কোটি টিকা আনবে সরকার। এ টিকা অগ্রাধিকার ভিত্তিতে দেয়া হবে। এখন করোনা সংক্রমণ কিছুটা বাড়ছে, কিন্তু তা অন্যান্য দেশের তুলনায় কম বলেও জানান মন্ত্রী।

টিকাদান ক্যাম্পেইন উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে হাম- রুবেলা টিকা দেয়ার জন্য সকল অভিভাবককে আহ্বান জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, ভ্যাকসিনের কারণে বাংলাদেশ গড় আয়ু বাড়ছে, ভ্যাকসিনের মাধ্যমে শিশু-মায়ের মৃত্যু ঝুঁকি কমে আসছে। দেশের ৯০ শতাংশ শিশুকে ভ্যাকসিনের আওতায় আনা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, অতীতে সরকার কর্তৃক বেশ কয়েকবার দেশব্যাপী হাম-রুবেলা ক্যাম্পেইন পরিচালিত হওয়া সত্ত্বেও বিগত কয়েক বছরে দেশে হাম ও রুবেলা রোগের প্রকোপ ও আক্রান্তের সংখ্যা দুটিই বৃদ্ধি পেয়েছে। এই পরিস্থিতি থেকে উত্তরণকল্পে এবং ২০১৩ সাল নাগাদ দেশ থেকে হাম-রুবেলা দূরীকরণের লক্ষ্যমাত্রা অর্জনের নিমিত্তে সরকার আগামী ১২ ডিসেম্বর হতে ২৪ জানুয়ারি পর্যন্ত সারাদেশে এই হাম-রুবেলা ক্যাম্পেইন ২০২০ পরিচালনা করতে যাচ্ছে।।

ক্যাম্পেইনটি সারাদেশে কমিউনিটি পর্যায়ে পরিচালিত হওয়ার পাশাপাশি টিকাদান কার্যক্রমও চালু থাকবে। ক্যাম্পেইনের সময় টিকাদান কেন্দ্রসমূহ শুক্রবার ও অন্যান্য সরকারি ছুটি ব্যতিত একযোগে সকাল ৮ থেকে বিকাল ৪ টা পর্যন্ত খোলা থাকবে। ৬ সপ্তাহব্যাপী এই ক্যাম্পেইনে ভিড় এড়াতে টিকাকেন্দ্রের সংখ্যা বৃদ্ধি করা হয়েছে।

পূর্ববর্তী খবরমামুনুলের বিরুদ্ধে মামলার আবেদন আমলে নেয়নি আদালত?
পরবর্তী খবরচট্টগ্রামে ৩টি শিল্প পার্ক স্থাপন করবে বিসিক।

Leave a Reply