আমদানি শুরুর পরেও হিলিতে কমছে না কাঁচা মরিচের দাম

সাংবাদিক নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি 2020-2021

সরবরাহ কমের অযুহাতে দেশের বাজারে কাঁচা মরিচের দাম অস্থির বিরাজ করছে। ঠিক এসময় পণ্যটির দাম স্বাভাবিক রাখতে আমদানির অনুমতি দেয় সরকার। এরপর দেশের বিভিন্ন স্থলবন্দর দিয়ে কাঁচা মরিচ আমদানি শুরু হলেও দেশের বাজারে কমছে না এর দাম। হিলি স্থলবন্দর দিয়ে গতকাল (শনিবার) দুই ট্রাকে ২৩ হাজার ৫৬২ কেজি কাঁচা মরিচ আমদানি হয়েছে।তারপরও হিলির পাইকারি ও খুচরা বাজারে কমছে না আমদানিকৃত কাঁচা মরিচের দাম,তবে কিছুটা প্রভাব পড়েছে দেশীয় মরিচের দামে।

আজ রবিবার সকালে হিলি বাজার ঘুরে দেখা যায়, দোকান গুলোতে কাঁচা মরিচের কিছুটা সরবরাহ বেড়েছে তবে আমদানিকৃত মরিচ বিক্রি হচ্ছে ১২০ টাকা কেজি দরে।অন্যদিকে তিনদিন আগে ১৬০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হওয়া দেশীয় কাঁচা মরিচ বিক্রি হচ্ছে ১০০ টাকা কেজি দরে।অনেকটাই দাম কমেছে দেশীয় মরিচের।

হিলি বাজারে কাঁচা মরিচ কিনতে আসা বেলাল নামের একজন ক্রেতা জানান,কাঁচা মরিচ আমদানি হচ্ছে শুনে দাম কমবে মনে করলাম। বাজারে এসে দেখি দাম একই আছে।আমদানি করার পরও দাম বেশি হওয়ায় আমাদের বিপাকে পড়তে হচ্ছে।

হিলির খুচরা বিক্রেতা আব্দুল মজিদ জানান,দেশী কাঁচা মরিচের দাম কিছুটা কমেছে,তবে আরো দুই একদিন গেলে দাম স্বাভাবিক হয়ে আসবে। অন্যদিকে আমদানি সবে মাত্র শুরু হওয়ায় ১২০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে এলসির মরিচ।

হিলি স্থলবন্দরের আমদানি-রপ্তানিকারক গ্রুপের সভাপতি হারুন উর রশিদ হারুন জানান,গতকাল শনিবার থেকে হিলি স্থলবন্দর দিয়ে কাঁচা মরিচ আমদানি শুরু হয়েছে। হিলি বন্দরের আমদানিকারক বেশি বেশি কাঁচা মরিচের এলসি করেছে। এলসি করা কাঁচা মরিচ গুলো দেশে প্রবেশ করলে দাম আরো স্বাভাবিক হয়ে আসবে।

পূর্ববর্তী খবর তুমি কি বুঝতে পার না, কারা আমাকে হত্যা করতে চায়?
পরবর্তী খবর‘সাধারণ ক্ষমা’ ঘোষণা করেছে তালেবান

Leave a Reply