গাজায় ইহুদীবাদী ইসরাইলে হামলায় নিহত বেড়ে ১২২ জন

অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকায় হামলা অব্যাহত রেখেছে ইহুদীবাদী ইসরায়েলি দখলদার বাহিনী। গত সোমবার থেকে এই অঞ্চলে একের পর এক বোমা হামলা চালিয়েছে ইসরায়েলি জঙ্গি-বিমান। এ পর্যন্ত কয়েকশ বার বিমান হামলা চালানো হয়েছে।

আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম রয়টার্স জানায়, ইসরায়েলি বোমা হামলায় এখন পর্যন্ত ৩১ শিশু ও ২০ নারীসহ নিহতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১২২ জনে। আজও নতুন করে ১৩ জন ফিলিস্তিনি নিহত হন। এছাড়াও অসংখ্য মানুষ আহত হন। জানা যায়, ইসরায়েলে হওয়া ক্ষেপণাস্ত্র হামলা প্রতিরোধে বিভিন্ন সামরিক স্থাপনা লক্ষ্য করে হামলা চালানো হয়। ৪০ মিনিট ধরে চলা এ হামলায় নতুন করে আরও ১৩ ফিলিস্তিনি নিহত হন। তাদের মধ্যে এক মা ও তার তিন শিশু ছিলেন। ধ্বংসস্তূপ থেকে তাদের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

পাশাপাশি অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকায় বিমান হামলার পর এবার স্থল আক্রমণ শুরু করেছে ইসরায়েলি দখলদার বাহিনী। তাদের বিমান ও স্থল বাহিনী বৃহস্পতিবার (১৩ মে) স্থানীয় রাত থেকেই ফিলিস্তিনিদের ওপর এই আক্রমণ শুরু করেছে বলে জানিয়েছে ইসরায়েলি প্রতিরক্ষা বাহিনী (আইডিএফ)। আইডিএফের মুখপাত্রের বরাত দিয়ে এক প্রতিবেদনে জেরুজালেম পোস্ট জানিয়েছে, গত সোমবার থেকে শুরু হওয়া ইসরায়েলের ‘অপারেশন গার্ডিয়ানস অব দ্য ওয়াল’ নামের এই সশস্ত্র অভিযানে ফিলিস্তিনি সশস্ত্র গোষ্ঠী হামাসের সাত শতাধিক স্থাপনায় হামলা চালানো হয়েছে। এই হামলায় ড্রোনও ব্যবহার করছে ইসয়েইল।

ইসরায়েলি বাহিনী জানিয়েছে, গত চারদিনে ফিলিস্তিনে যত হামলা চালানো হয়েছে তার ৯৫ শতাংশই ছিল আকাশপথে। এতে হামাসের যে ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে তা পূরণে কয়েক বছর লেগে যাবে বলে দাবি করেছে ইসরায়েল। বৃহস্পতিবার গাজা সীমান্তে ইসরায়েলের বিপুল পরিমাণ সেনা ও ট্যাঙ্ক মোতায়েন করার খবর পাওয়া যায়।

অপরদিকে, ইসরায়েল অভিমুখে হামাসের রকেট হামলায় এ পর্যন্ত আটজন ইসরায়েলি নিহত হয়েছেন। তাদের মধ্যে দুই শিশু ছাড়াও এক ভারতীয় নারী এবং এক ইসরায়েলি সেনা রয়েছে। আহত হয়েছে শতাধিক।

এদিকে গাজায় ইসরায়েলি হামলার কঠোর নিন্দা এবং ফিলিস্তিনের প্রতি সমর্থন পুর্নব্যক্ত করেছে ইসলামিক সহযোগিতা সংস্থা (ওআইসি)। সম্প্রতি তাদের এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ওআইসি ফিলিস্তিনি জনগণের ওপর ইসরায়েলি দখলদারি কর্তৃপক্ষের বারংবার হামলার কঠোর নিন্দা জানাচ্ছে। একইসঙ্গে সংস্থাটি ফিলিস্তিনি জনগণকে তার ভূমি থেকে উচ্ছেদ, জোর করে তাদের জমি দখল এবং ইহুদি বসতি নির্মাণেরও নিন্দা জানাচ্ছে।

সত্যের সকাল / আলামিল (প্রকাশনা টিম)

পূর্ববর্তী খবরঈদ ভ্রমণে গিয়ে নড়াইলে নিহত একজন, আহত ৩ জন।
পরবর্তী খবরচাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোলে সড়ক দুর্ঘটনায় ৩ শ্রমিক নিহত, আহত ৬

Leave a Reply