পাবনায় যুবদল নেতার গলিত লাশ উদ্ধার!

সোমবার (০৫ এপ্রিল) নিখোঁজের ৫ দিন পর পাবনার আটঘরিয়া থেকে শাজাহান আলী (৪০) নামের যুবদল নেতার গলিত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

উপজেলার দেবোত্তর ইউনিয়নের গঙ্গারামপুর গ্রামের একটি টয়লেটের সেফটি ট্যাংক থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।

নিহত শাজাহান পাবনা শহরের শালগাড়ীয়া এলাকার তোফাজ্জল হোসেনের ছেলে এবং নয়ন ফটোস্ট্যাটের মালিক।

জেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক ইলিয়াস আহমেদ হিমেল রানা জানান, নিহত শাজাহান জেলা যুবদলের যুগ্ম সম্পাদক ছিলেন। কেউ তাকে পরিকিল্পতভাবে হত্যা করেছে। আমরা ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত ও জড়িতদের দ্রুত গ্রেপ্তারের দাবি জানাচ্ছি।

নিহতের বড় ভাই ফরিদুল ইসলাম জানান, গত ৩১ মার্চ সন্ধ্যা সাড়ে সাতটার দিকে নিজের ফটোস্ট্যাট দোকান থেকে কাউকে কিছু না বলে বের হয়ে যান যুবদল নেতা শাজাহান আলী।

তারপর থেকে বিভিন্ন জায়গায় খোঁজাখুঁজি করা হয় কিন্তু তার কোনো খোঁজ পায়নি পরিবার। পরদিন ১ এপ্রিল এ ঘটনায় সদর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করা হয়।

এদিকে, সোমবার বিকেলে আটঘরিয়ার গঙ্গারামপুর গ্রামের আবুল কাশেমের বাড়ির পেছনের টয়লেটের সেফটি ট্যাংক থেকে দুর্গন্ধ ছড়িয়ে পড়লে স্থানীয়রা একটি মৃতদেহ দেখতে পেয়ে পুলিশকে জানায়।

আটঘরিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হাফিজুর রহমান জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে গলিত মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

নিহতের স্বজনেরা গিয়ে লাশ শনাক্ত করেছে। তবে কে বা কারা তাকে হত্যার পর এখানে ফেলে রেখে গেছে তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

লাশ ময়না তদন্তের জন্য পাবনা জেনারলে হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ বিষয়ে পরিবারের পক্ষ থেকে মামলা দায়েরের বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

পূর্ববর্তী খবরগোদাগাড়ীতে মাস্ক না পড়ায় ১২ জনকে জেল জরিমানা
পরবর্তী খবরমোংলায় লকডাউনের প্রথম দিন থেকেই প্রশাসনের কঠোর ব্যাবস্থা।

Leave a Reply