বুধবার থেকে পাবনার সকল রুটে পরিবহন ধর্মঘট।

পাবনাঃ- ছয় দফা দাবীতে বুধবার (৩০ ডিসেম্বর) ভোর ৬:০০টা থেকে সমগ্র পাবনার সকল রুটে পরিবহন ধর্মঘট আহবান করেছে পাবনা জেলা বাস ট্রাক মালিক শ্রমিক ঐক্য পরিষদ।

রোববার (২৭ ডিসেম্বর) দুপুরে পাবনা প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে উত্তরবঙ্গ বাস ট্রাক মালিক শ্রমিক ঐক্য পরিষদ নেতৃবৃন্দ এ কথা ঘোষণা দেন।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন পাবনা জেলা মোটর মালিক গ্রুপের সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা হাবিবুর রহমান হাবিব।

তিনি বলেন, কোন কারণ ছাড়াই দীর্ঘ তিন চার বছর ধরে সিরাজগঞ্জ জেলার শাহজাদপুরের বাস মালিক ও শ্রমিকরা পাবনার কোচ ও বাস ড্রাইভার দের মাঝে মধ্যেই বিনা কারণে মারধর করে আসছে।

বুধবার থেকে পাবনার সকল রুটে পরিবহন ধর্মঘট।

এ ছাড়া শাহজাদপুরের উপর দিয়ে বাস ট্রাক চলাচলে বাধা সৃষ্টি এবং পাবনার মালিক শ্রমিকদের কাছ থেকে জোরপুর্বক চাঁদা আদায় করছে।

পাবনার মালিক শ্রমিকরা সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে এর প্রতিকার চেয়ে কোন ফল পায়নি।

তিনি বলেন, আমরা এর স্থায়ী সমাধান চাই। আগামী ৭২ ঘন্টার মধ্যে ছয় দফা দাবী মানা না হলে বুধবার ভোর ৬:০০টা থেকে পাবনা জেলার সকল রুটে সকল প্রকার যানবাহন ধর্মঘট শুরু হবে।

এ ছাড়া রোববার পাবনা থেকে ঢাকাগামী বাস কোচ ধর্মঘটের চতুর্থ দিন অতিবাহিত হয়। ধর্মঘটের ফলে সাধারণ মানুষের ভোগান্তি চরমে পৌছেছে।

শুক্রবার রাতে এবং গতকাল শনিবার সকালে পাবনার বাস মালিক ও শ্রমিকরা দফায় দফায় বৈঠক করেন। তবে কোন সিদ্ধান্ত ছাড়াই সভা শেষ হয়।

তিনি আরও বলেন, প্রয়োজনে উত্তর ও দক্ষিণবঙ্গের মোটর মালিক শ্রমিকদের সাথে নিয়ে আরও বৃহত্তর কর্মসূচী দেওয়া হবে।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন পাবনা জেলা মোটর মালিক গ্রুপের সাধারন সম্পাদক আবুল এহসান খান রেয়ন, সহসভাপতি খোকন মালিথা, ট্রাক মালিক গ্রুপ সাধারণ সম্পাদক রুহুল আমিন বিশ্বাস রানা, সহসভাপতি মোজাম্মেল হক কবীর, বাস মিনিবাস মালিক সমিতির আহবায়ক হাজী শরীফ, মোটর শ্রমিক ইউনিয়নের সাবেক সভাপতি ফিরোজ খান, ট্রাক শ্রমিক সভাপতি মোঃ শহিদুল্লাহ, সাধারণ সম্পাদক ইসহাক আলীসহ জেলার পরিবহণ সংশ্লিষ্ট সকল সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

এ বিষয়ে পাবনার জেলা প্রশাসক কবীর মাহমুদ জানান, সিরাজগঞ্জ এবং পাবনার মালিক ও শ্রমিকদের আলাপ আলোচনা করে সমস্যা সমাধানে ব্যবস্থা নেওয়া হয়।

পূর্ববর্তী খবরবাংলাদেশ টি এস্টেট স্টাফ এসোসিয়েশন এর ৫৬ তম সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত
পরবর্তী খবরঅবশেষে কাতারে দ্বিতীয় দফা আলোচনায় সম্মতি দিলেন প্রেসিডেন্ট গনি।

Leave a Reply