বাংলাদেশের সঙ্গে হেরে চাকরি হারানোর শঙ্কায় অস্ট্রেলিয়ার কোচ

বাংলাদেশের সঙ্গে হেরে চাকরি হারানোর শঙ্কায় অস্ট্রেলিয়ার কোচ

সবশেষ ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও বাংলাদেশ সফরে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি মিলে ১৩টি ম্যাচ খেলেছে অস্ট্রেলিয়া, তার মধ্যে মাত্র ৪টিতে জয় পেয়েছে অসিরা। দলের এমন বাজে পারফরম্যান্সের কারণেই চাকরি হারানোর শঙ্কায় আছেন কোচ ল্যাঙ্গার।

অস্ট্রেলিয়াকে সিরিজ হারিয়ে ড্রেসিংরুমে টাইগাররা উদযাপন করলে সেই ভিডিও ওয়েবসাইটে আপলোড করেন ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া ডটকমের এক কর্মী। তার সঙ্গে বাজে ব্যবহার করেন কোচ। এসব কারণেই চাকরি হারানোর শঙ্কায় ল্যাঙ্গার।

জাস্টিন ল্যাঙ্গারের সঙ্গে বনিবনা না হওয়ায় ২০১৯ সালের পর থেকেই জাতীয় দলের বাইরে আছেন উসমান খাজা। অস্ট্রেলিয়ার একমাত্র এই মুসলিম তারকা ক্রিকেটার কোচের পক্ষ নিয়ে বলেন, জাস্টিন ল্যাঙ্গারের হয়তো মনে হচ্ছে দলের ক্রিকেটাররাই তার পিঠে ছুরি মারছে। সব দেখে তা-ই তো মনে হচ্ছে। এ কারণেই ব্যাপারটা বেশি হতাশাজনক। সত্যি বলতে, এসব দেখতে খুবই খারাপ লাগে।

নিজের ইউটিউব চ্যানেলে উসমান খাজা আরও বলেছেন, সবকিছু পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে বিশ্লেষণ করে দেখুন, দলের হারের জন্য কখনোই কোচ একা দায়ী নয়। খেলোয়াড়রা প্রত্যাশিত পারফর্ম করতে পারেনি। একটা পর্যায়ে গিয়ে খেলোয়াড়দেরও কিছুটা দায় নেওয়া উচিত। ওদের আরও ভালো খেলতেই হবে, আর দিন শেষে এটা শুধু একজনের নয়, সবারই ভালো খেলার ব্যাপার।

পাকিস্তানি বংশোদ্ভূত অস্ট্রেলিয়ান এ তারকা আরও বলেন, টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ এবং অ্যাশেজ সিরিজে অস্ট্রেলিয়ার কোচ থাকা ল্যাঙ্গারের প্রাপ্য।জাতীয় দলের বাজে পারফরম্যান্সের কারণে চাকরি হারানোর শঙ্কায় আছেন অস্ট্রেলিয়ার প্রধান কোচ জাস্টিন ল্যাঙ্গার।

পূর্ববর্তী খবরপাবনার ঈশ্বরদীতে সাবেক মেয়রের সংবাদ সম্মেলন!
পরবর্তী খবরসিনহা হত্যা মামলার সাক্ষ্য গ্রহণ শুরু

Leave a Reply